Main Menu

আদালতকে প্রধানমন্ত্রী প্রাইভেট সেক্টরে পরিণত করার চেষ্টা–রুহুল কবির রিজভী

আদালতের কোন স্বাধীনতা নেই, সকল মামলা আজ শাসক দলের ইচ্ছায় হয়। আদালতকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা প্রাইভেট সেক্টরে পরিণত করার চেষ্টা করছেন বলে অভিযোগ করেছেন বিএনপি’র যুগ্ম-মহাসচিব অ্যাডভোকেট রুহুল কবির রিজভী।

শুক্রবার জাতীয় প্রেস ক্লাবে বেগম খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে দায়ের করা মিথ্যা মামলা’ প্রত্যাহারের দাবিতে জাতীয়তাবাদী মহিলা দল আয়োজিত এক মানববন্ধনে এ কথা বলেন তিনি।

তিনি আইনমন্ত্রীর উদ্দেশে চ্যালেঞ্জ দিয়ে বলেন, ‘আইনমন্ত্রী বলেছেন, ‘‘বিচারপতিরা অবসরে গেলেও রায় লিখতে পারবেন।’’ আমি বলব, তিনি আইনের দৃষ্টিতে মিথ্যা বলছেন, অন্যায় কথা বলছেন। কারণ অবসরে গেলে একজন বিচারপতির শপথ থাকে না।

বিএনপি চেয়ারপারসনের বিরুদ্ধে রাষ্ট্রদ্রোহ মামলা প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘উচ্চ আদালতের কলঙ্ক সাবেক বিচারপতি খায়রুল হক দেশের সকল রক্তপাত ও হানাহানির জন্য দায়ী। তার অপকর্মকে ঢাকার জন্যই খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে রাষ্ট্রদ্রোহ মামলা দায়ের করা হয়েছে। পাপ কখনো চাপা থাকে না। জনতার আদালতে পাপীদের বিচার হবেই।’

আয়োজক সংগঠনের সভাপতি নূরে আরা সাফার সভাপতিত্বে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান বেগম সেলিমা রহমান, চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা অ্যাডভোকেট আহমদ আযম খান, সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক শিরিন সুলতানা, জাতীয়তাবাদী মুক্তিযোদ্ধা দলের সভাপতি ইশতিয়াক আজিজ উলফাত প্রমুখ।






Related News

Leave a Reply

Your email address will not be published.