Main Menu

যুদ্ধাপরাধের বিচার বানচাল করার জন্যই পাকিস্তান এবং বিএনপি ষড়যন্ত্রে লিপ্ত হয়েছে–মাহবুবউল আলম হানিফ

আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক মাহবুবউল আলম হানিফ এমপি বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশ যখন উন্নয়নের মহাসড়কে তখন বিএনপি ও পাকিস্তান মিলে বাংলাদেশের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র করছে। পাকিস্তান বাংলাদেশে গুপ্ত হত্যা চালাচ্ছে। যুদ্ধাপরাধের বিচার বানচাল করার জন্যই পাকিস্তান এবং বিএনপি একত্রে এমন ষড়যন্ত্রে লিপ্ত হয়েছে।

আজ বুধবার আওয়ামী লীগ সভাপতির ধানমন্ডির রাজনৈতিক কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি একথা বলেন।

এ সময় আরো উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য ও ১৪ দলের মুখপাত্র মোহাম্মদ নাসিম, আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম ও খালিদ মাহমুদ চৌধুরী, সাম্যবাদী দলের সাধারণ সম্পাদক দিলীপ বড়ুয়া, ঢাকা মহনগর আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি কামাল আহমেদ মজুমদার প্রমুখ। এরপর আগামী ১৫ ফেব্রুয়ারির মানববন্ধন সফল করতে ১৪ দলের বিভিন্ন পর্যায়ের নেতাকর্মীদের প্রস্তুতি সভা হয়।

আ’লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য ও ১৪ দলের মুখপাত্র মোহাম্মদ নাসিম বলেন, বাংলাদেশের অভ্যন্তরীণ বিষয় নিয়ে পাকিস্তানের আচরণ শিষ্টাচার বহির্ভূত। আর বিএনপি নেত্রী মুক্তিযুদ্ধ এবং মুক্তিযুদ্ধে শহীদদের নিয়ে একের পর এক আপত্তিকর বক্তব্য দিয়ে পাকিস্তানকে সহযোগিতা করে যাচ্ছেন। বাংলাদেশের অভ্যন্তরীণ বিষয়ে পাকিস্তানের এমন হস্তক্ষেপ কোনোভাবেই কাম্য হতে পারে না।

তিনি বলেন, যুদ্ধাপরাধের বিচারের কারণে পাকিস্তানের গাত্রদাহ হচ্ছে। পাকিস্তান এখন সন্ত্রাসের স্বর্গরাজ্য। জঙ্গি আর সন্ত্রাসের কারণে পাকিস্তানের মানুষও ক্ষুদ্ধ। পাকিস্তান সরকার সে দেশের জনগণের দৃষ্টি অন্য দিকে ফেরাতেই অনৈতিকভাবে বাংলাদেশের বিষয়ে কথা বলছে, যা ১৯৭৩ সালের সিমলা চুক্তির স্পষ্ট লঙ্ঘন।

মোহাম্মদ নাসিম বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সার্কভুক্ত দেশগুলোর মধ্যে সুসম্পর্ক বজায় রাখতে বদ্ধপরিকর। কিন্তু বাংলাদেশ বিষয়ে পাকিস্তান সব সীমা অতিক্রম করছে। পাকিস্তানের সাথে সম্পর্ক রাখার বিষয়ে নতুন করে ভাবা হচ্ছে।






Related News

Comments are Closed