Main Menu

রেইনট্রি হোটেলে শুল্ক গোয়েন্দাদের অভিযান, মদ উদ্ধার

বনানীর হোটেল রেইনট্রিতে ১০ বোতল মদ পেয়েছে শুল্ক গোয়েন্দার একটি দল।

আজ রোববার দুপুরে হোটেলটিতে অভিযান পরিচালনার সময় বিদেশি মদের ১০টি বোতল উদ্ধার করা হয়। শুল্ক গোয়েন্দার মহাপরিচালক মইনুল খান এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

মইনুল খান বলেন, ‘হোটেল রেইনট্রিতে অভিযান অব্যাহত আছে। হোটেলের প্রতিটি কক্ষে তল্লাশি চালানো হচ্ছে।’

এর আগে গতকাল শনিবার রেইনট্রি হোটেলের জেনারেল ম্যানেজার ফ্র্যাংক ফরগেট জানিয়েছিলেন, হোটেলটির মদের লাইসেন্স নেই।

উল্লেখ্য, গত ২৮ মার্চ রাতে রেইনট্রি হোটেলে ধর্ষণের শিকার হন দুই তরুণী। ধর্ষণের শিকার হওয়ার অভিযোগ এনে ওই দুই তরুণী গত ৬ মে বনানী থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। মামলার এজাহার সূত্রে জানা যায়, ২৮ মার্চ পূর্বপরিচিত সাফাত আহমেদ ও নাঈম আশরাফ ওই দুই তরুণীকে জন্মদিনের দাওয়াত দেয়। এরপর তাদের বনানীর ‘কে’ ব্লকের ২৭ নম্বর সড়কের ৪৯ নম্বরে রেইনট্রি নামের হোটেলে নিয়ে যাওয়া হয়।

এজাহারে আরো অভিযোগ করা হয়েছে, সেখানে দুই তরুণীকে হোটেলের একটি কক্ষে আটকে রেখে মাথায় অস্ত্র ঠেকিয়ে ধর্ষণ করে সাফাত ও নাঈম। এ ঘটনা সাফাতের গাড়িচালক বিল্লালকে দিয়ে ভিডিও করানো হয় বলেও উল্লেখ করা হয় এজাহারে।

ধর্ষণ মামলার আসামিরা হলো- সাফাত আহমদ, নাঈম আশরাফ, সাদমান সাকিফ, সাফাতের গাড়িচালক বিল্লাল ও দেহরক্ষী আবুল কালাম আজাদ।






Related News

Comments are Closed