Main Menu

মহেশপুর সীমান্তে বাধভাঙ্গা জনশ্রত, বাড়ছে শংকা ও উদ্বেগ!

জাহিদুর রহমান তারিক, ঝিনাইদহ-
করোনার ভয়াবহ বিস্তারের মধ্যে আরো উদ্বেগ বাড়াচ্ছে ভারত থেকে আসা মানুষ। মহেশপুরের বিভিন্ন সীমান্ত দিয়ে অবৈধ পথে বাংলাদেশ প্রবেশ করছে অনুপ্রবেশকারীরা। কোনমতেই ভারত থেকে আসা মানুষের জনশ্রত থামানো যাচ্ছে না। রোববার মহেশপুর ৫৮ বিজিবি সদস্যরা সীমান্তের একাশিপাড়া ও তেতুলিয়া গ্রাম থেকে দালালসহ আটক করেছেন ১০ জনকে। এরা সবাই ভারত থেকে অবৈধ পথে বাংলাদেশে প্রবেশ করছিল। এ তথ্য নিশ্চিত করেন অধিনায়কের পক্ষে বিজিবির সহকারি পরিচালক মোঃ নজরুল ইসলাম খান। রোববার বিকালে পাঠানো এক ই-মেইল বার্তায় তিনি উল্লেখ করেছেন চুয়াডাঙ্গা জেলার জীবননগর উপজেলার তেতুলিয়া বটতলা মোড় থেকে চারজনকে আটক করা হয়। আটককৃতরা হচ্ছেন বাগেরহাট জেলার রাজাপুর গ্রামের কাজী মজিবারের ছেলে তুহিন কাজী, ঝালকাঠি জেলার মহেশকান্দি গ্রামের সামেদ হালদারের ছেলে বাবুল হালদার, বরগুনা জেলার পাথরঘাটা উপজেলার জালিয়াঘাটা গ্রামের আব্দুল হকের ছেলে আব্দুল মান্নান ও খুলনার রূপসা উপজেলার গ্রামের আব্দুল করিমের ছেলে মোহাম্মদ আলী। অপর এক ইমেইল বার্তায় বিজিবির পক্ষ থেকে বলা হয়েছে মহেশপুর সীমান্ত থেকে অবৈধ পথে ভারত থেকে বাংলাদেশে প্রবেশের সময় নড়াইল জেলার পেডরুলী গ্রামের হারান মল্লিকের ছেলে কালাম মল্লিক, তার স্ত্রী নাদিয়া খাতুন, একই গ্রামের জিকরাইলের স্ত্রী জোবায়দা খাতুন, নাজমুল মোল্লার স্ত্রী মরিয়ম, আকদিয়ারচর গ্রামের বাসুদেব গোলদারের স্ত্রী শ্রীমতি অমৃতা, তার মেয়ে সুমিত এবং অবৈধ পারাপারের সাথে নিয়োজিত দালাল মহেশপুর উপজেলার মাইলবাড়িয়া গ্রামের মনিরুল ডাক্তারের ছেলে সালাউদ্দিনকে আটক করা হয়। তাদের বিরুদ্ধে পাসপোর্ট আইনে মামলা করা হয়েছে।






Related News

Comments are Closed